মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৮:৫৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
লাখো মুসল্লির জিকির-আজকারে মুখরিত ছারছীনা দরবার শরীফের মাহফিল ময়দান।দৈনিক শীর্ষ সংবাদ স্বরূপকাঠিতে রাজনৈতিক দলের নারীনেত্রীদের সাথে অপরাজিতাদের মতবিনিময় সভা স্বরূপকাঠিতে কুরিয়ার সার্ভিস থেকে চুরি হওয়া মালামাল নাজিরপুর থেকে উদ্ধার স্বরূপকাঠিতে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা ভাণ্ডারিয়ার প্রতিটি ওয়ার্ডে সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হচ্ছে মাদ্রাসার সুপার এবং সভাপতিকে অপসারণের দাবিতে মানববন্ধন  ড্রাগন চাষে সফলতার নতুন গল্প নেছারাবাদের চাষীদের। দৈনিক শীর্ষ সংবাদ সাম্প্রদায়ীক সম্প্রীতির বন্ধন অটুট রেখে দুর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হবে ——মৎস্য ও প্রানী সম্পদ মন্ত্রী নাদিরা বেগমের শারীরিক সুস্থতা কামনায় এনপিপির  দোয়া মোনাজাত বিনা প্রতিদ্বন্দিতার নির্বাচন গণতন্ত্রের বিকাশ নষ্ট হচ্ছে -শেখ ছালাউদ্দিন ছালু

স্বরূপকাঠিতে কুরিয়ার সার্ভিস থেকে চুরি হওয়া মালামাল নাজিরপুর থেকে উদ্ধার

আনোয়ার শীর্ষ সংবাদ ডেস্ক
  • প্রকাশের সময়ঃ মঙ্গলবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২১
  • ৭ জন দেখেছেন

স্বরূপকাঠির সুন্দরবন কুরিয়ার সাভিস থেকে চুরি হওয়া মালামালের আংশিক নাজির পুর উপজেলার দেউলবাড়ী দোবরা থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। রোববার থেকে শুরু হয়ে সোমবার রাত ১২ টায় অভিযান শেষ হয়।গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নেছারাবাদ সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. রিয়াজ হোসেন পিপিএম ’র নেতৃত্বে নানা কৌশল অবলম্বন করে মূল আসামী জাহারুল কে সনাক্ত করে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

এরপর বৈঠাকাটা ফঁড়ির অফিসার ইন চার্জ ইন্সপেক্টর আউয়াল কবির ও নেছারাবাদ থানার এস আই শাহজাহান কবিরকে নিয়ে উদ্ধার অভিযানে নেমে জাহারুলের বাড়ী তল্লাসী করে চুরি যাওয়া মালামালের একটি সিলিং ফ্যান ও একটি টর্চ লাইট উদ্ধার করা হয়। এরপর জাহারুলের দেওয়া তথ্য মতে তার অপর সহযোগী বাড়ীতে অভিযান চালানো হয়। সহযোগী পালিয়ে যায়। সহযোগীর ঘর থেকে চুরি হওয়া মালামালে কিছু উদ্ধার করা হয়। জাহারুল নাজিরপুর উপজেলার দেউলবাড়ী দোবড়া গ্রামের মতিয়ার রহমান বেপারীর ছেলে। পুলিশ আইনী প্রকৃয়ায় জাহারুলকে আদালতে পাঠিয়েছে। উল্লেখ্য গত ৩ সেপ্টেম্বর রাতে ছারছীনা দরবারের দক্ষিন পাশে স্বরূপকাঠি-বরিশাল-ঢাকা সড়কের পাশে সুন্দরবন কুরয়ার সার্ভিসের স্বরূপকাঠি শাখার অফিসের শার্টারে শুরা ভেঙে প্রায় দেড় লাখ টাকা মূল্যের মালামাল চুরি করে নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে অভিযানে নেতৃত্ব দানকারী নেছারাবাদ সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. রিয়াজ হোসেন বলেন নানা প্রকার কৌশল অবলম্বন করে দুই দিন প্রচেষ্টার পর আসামীকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হই। একাজে বৈঠাকাটা পুলিশ ফাঁড়ির অফিসার ইনচার্জ আউয়াল কবির ও
কুরিয়ার সার্ভিসের পরিচালকের ছেলে রিয়াজ মাহমুদ সর্বাত্মক সহযোগীতা করেছেন। আসামী জাহারুলকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে। অভিযান অব্যহত রয়েছে।নেছারাবাদ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবীর মোহাম্মদ হোসেন বলেন,
আসামীকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের
প্রকৃয়া অব্যহত রয়েছে।##

শেয়ার করুন

একই ধরনের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2020 dailyshirshosongbad
Developed By NCB IT